ঢাকা ০৮:২২ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফরিদগঞ্জে অপহরণ মামলার আসামী ধরতে পুলিশের গড়িমসির অভিযোগ করে সংবাদ সম্মেলন

  • আপডেট: ১২:৫৫:০৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯
  • ১২

ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধি॥
জেলা পর্যায়ে মেধাবী ফুটবলার হিসেবে বেশ কয়েকবার স্বীকৃতি পাওয়া ফরিদগঞ্জ বঙ্গবন্ধু সরকারি কলেজের একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী রিফাতুল ইসলামের অপহরণ ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশের গড়িমসি এবং অপহৃত ছেলের সন্ধান চেয়ে এক মা সংবাদ সম্মেলন করেছেন। বুধবার দুপুরে ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবে এই সংবাদ সম্মেলন এই অনুষ্ঠিত হয়েছে।
লিখিত বক্তব্যে রিফাতের মা রওশন আরা রানী বলেন, ‘এবছরের গত ১৬ জানুয়ারী তার ছেলে নিঁেখাজ হয়। পরে ২৩ জানুয়ারী ফরিদগঞ্জ থানায় নিঁেখাজ বিষয়ে সাধারণ ডায়েরী করেন। পরবর্তীতে এই নিখোঁজের পিছনে স্থানীয় টুটুল পাটওয়ারী, জাকির হোসেন, চায়না বেগমসহ বেশ কয়েকজন জড়িত বলে তাদের কাছে সন্দেহ হওয়ায় গত ২০ ফেব্রয়ারী চাঁদপুর আমলী আদালতে অপহরণ মামলা দায়ের করি। আদালত মামলাটি দায়ের পূর্বক থানা পুলিশকে তদন্ত করার নির্দেশ দানের পর থানা পুলিশ অজ্ঞাত কারণে গত ২০ মার্চ মামলাটি রের্কড করেন। কিন্তু মামলা রের্কড হওয়ার প্রায় তিন মাস পার হয়ে গেলেও অদ্যবদি মামলা অগ্রগতি নেই। একদিকে আমার ছেলের হদিস নেই , অন্যদিকে মামলার আসামীরা প্রকাশ্যে ঘুরছে। ফলে আমরা ভীত সন্ত্রস্ত । ’
এমতাবস্থায় নিঁেখাজ পুত্রের সন্ধান দেয়ার জন্য তিনি আইনশৃংখলা বাহিনীসহ সংশ্লিষ্ট সকলের দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন। এসময় রওশন আরা রানীর স্বামী ফারুকুল ইসলাম, বোন মনোয়ারা বেগম, মেয়ের ফারিয়া আক্তার, প্রতিবেশি জাহানারা বেগম, পারভীন বেগম , আয়েশা বেগম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Tag :
সর্বাধিক পঠিত

ফরিদগঞ্জে অপহরণ মামলার আসামী ধরতে পুলিশের গড়িমসির অভিযোগ করে সংবাদ সম্মেলন

আপডেট: ১২:৫৫:০৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯

ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধি॥
জেলা পর্যায়ে মেধাবী ফুটবলার হিসেবে বেশ কয়েকবার স্বীকৃতি পাওয়া ফরিদগঞ্জ বঙ্গবন্ধু সরকারি কলেজের একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী রিফাতুল ইসলামের অপহরণ ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশের গড়িমসি এবং অপহৃত ছেলের সন্ধান চেয়ে এক মা সংবাদ সম্মেলন করেছেন। বুধবার দুপুরে ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাবে এই সংবাদ সম্মেলন এই অনুষ্ঠিত হয়েছে।
লিখিত বক্তব্যে রিফাতের মা রওশন আরা রানী বলেন, ‘এবছরের গত ১৬ জানুয়ারী তার ছেলে নিঁেখাজ হয়। পরে ২৩ জানুয়ারী ফরিদগঞ্জ থানায় নিঁেখাজ বিষয়ে সাধারণ ডায়েরী করেন। পরবর্তীতে এই নিখোঁজের পিছনে স্থানীয় টুটুল পাটওয়ারী, জাকির হোসেন, চায়না বেগমসহ বেশ কয়েকজন জড়িত বলে তাদের কাছে সন্দেহ হওয়ায় গত ২০ ফেব্রয়ারী চাঁদপুর আমলী আদালতে অপহরণ মামলা দায়ের করি। আদালত মামলাটি দায়ের পূর্বক থানা পুলিশকে তদন্ত করার নির্দেশ দানের পর থানা পুলিশ অজ্ঞাত কারণে গত ২০ মার্চ মামলাটি রের্কড করেন। কিন্তু মামলা রের্কড হওয়ার প্রায় তিন মাস পার হয়ে গেলেও অদ্যবদি মামলা অগ্রগতি নেই। একদিকে আমার ছেলের হদিস নেই , অন্যদিকে মামলার আসামীরা প্রকাশ্যে ঘুরছে। ফলে আমরা ভীত সন্ত্রস্ত । ’
এমতাবস্থায় নিঁেখাজ পুত্রের সন্ধান দেয়ার জন্য তিনি আইনশৃংখলা বাহিনীসহ সংশ্লিষ্ট সকলের দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন। এসময় রওশন আরা রানীর স্বামী ফারুকুল ইসলাম, বোন মনোয়ারা বেগম, মেয়ের ফারিয়া আক্তার, প্রতিবেশি জাহানারা বেগম, পারভীন বেগম , আয়েশা বেগম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।