ঢাকা ০৬:৫৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মতলব দক্ষিণে ২লক্ষ টাকার স্বর্ণালংকার নিয়ে নববধু নিখোঁরেজ ঘটনায় স্বামীর জিডি

  • আপডেট: ০২:৫৬:০৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

মতলব প্রতিনিধি:

ইসলামী শরিয়ামতে পারিবারিক ভাবে শাহজাহান খান (৪৪) বিয়ে করেন নুরনাহার বেগমকে (২৫)। কিন্তু বিয়ের একমাস পর অসুস্থ মাকে দেখতে যাওয়ার নাম করে নিখোঁজ হন স্ত্রী নুরনাহার। বহুস্থানে খোঁজা-খুজি করে না পেয়ে অবশেষে গত ২৭ আগস্ট মতলব দক্ষিণ থানায় একটি হারানো ডায়রী করেন স্বামী (জিডি নং-৯৭৮)।
জানা যায়, মতলব দক্ষিণ উপজেলার উত্তর উপাদী গ্রামের মৃত কালু খানের ছেলে শাহজাহান খান পারিবারিক ভাবে গত জুন মাসে বিয়ে করেন চাঁদপুর সদর উপজেলার বিষ্ণপুর ইউনিয়নের চাঁনখা বাড়ির আক্কাস খানের মেয়ে নুরনাহার বেগমকে। বিয়ের পর ৮ আগস্ট সকালে অসুস্থ মাকে দেখার নাম করে স্বর্ণালংকারসহ প্রয়োজনীয় পোষাক নিয়ে বাড়িতে থেকে বের হয় স্ত্রী নুরনাহার। পরবর্তীতে স্বামী শাহশাহান তার স্ত্রীর খোঁজে শ্বশুর বাড়িতে ফোন করে তার কোন সন্ধান পাননি। এদিকে স্ত্রীর খোঁজে উভয়ের পরিবার বিভিন্ন স্থানে অনেক খোঁজ করেও সন্ধান পাননি তার।
স্ত্রীর নিখোঁজের বিষয়ে স্বামী শাহজাহান বলেন, তাকে আমি মোবাইল ফোন দিয়েছিলাম। বাপের বাড়িতে গিয়েছি কিনা তা জানতে ফোন করলে তা বন্ধ পাই। পরে শ্বশুরবাড়িতে খোঁজ নিলে তারা কোন খবর দিতে পারেনি। সে যাওয়ার সময় আনুমানিক দুই লক্ষ টাকার স্বর্ণালংকার নিয়ে যায়।

Tag :
সর্বাধিক পঠিত

গরু-ছাগলে ভরে গেছে হাট, তবে নেই ক্রেতা

মতলব দক্ষিণে ২লক্ষ টাকার স্বর্ণালংকার নিয়ে নববধু নিখোঁরেজ ঘটনায় স্বামীর জিডি

আপডেট: ০২:৫৬:০৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

মতলব প্রতিনিধি:

ইসলামী শরিয়ামতে পারিবারিক ভাবে শাহজাহান খান (৪৪) বিয়ে করেন নুরনাহার বেগমকে (২৫)। কিন্তু বিয়ের একমাস পর অসুস্থ মাকে দেখতে যাওয়ার নাম করে নিখোঁজ হন স্ত্রী নুরনাহার। বহুস্থানে খোঁজা-খুজি করে না পেয়ে অবশেষে গত ২৭ আগস্ট মতলব দক্ষিণ থানায় একটি হারানো ডায়রী করেন স্বামী (জিডি নং-৯৭৮)।
জানা যায়, মতলব দক্ষিণ উপজেলার উত্তর উপাদী গ্রামের মৃত কালু খানের ছেলে শাহজাহান খান পারিবারিক ভাবে গত জুন মাসে বিয়ে করেন চাঁদপুর সদর উপজেলার বিষ্ণপুর ইউনিয়নের চাঁনখা বাড়ির আক্কাস খানের মেয়ে নুরনাহার বেগমকে। বিয়ের পর ৮ আগস্ট সকালে অসুস্থ মাকে দেখার নাম করে স্বর্ণালংকারসহ প্রয়োজনীয় পোষাক নিয়ে বাড়িতে থেকে বের হয় স্ত্রী নুরনাহার। পরবর্তীতে স্বামী শাহশাহান তার স্ত্রীর খোঁজে শ্বশুর বাড়িতে ফোন করে তার কোন সন্ধান পাননি। এদিকে স্ত্রীর খোঁজে উভয়ের পরিবার বিভিন্ন স্থানে অনেক খোঁজ করেও সন্ধান পাননি তার।
স্ত্রীর নিখোঁজের বিষয়ে স্বামী শাহজাহান বলেন, তাকে আমি মোবাইল ফোন দিয়েছিলাম। বাপের বাড়িতে গিয়েছি কিনা তা জানতে ফোন করলে তা বন্ধ পাই। পরে শ্বশুরবাড়িতে খোঁজ নিলে তারা কোন খবর দিতে পারেনি। সে যাওয়ার সময় আনুমানিক দুই লক্ষ টাকার স্বর্ণালংকার নিয়ে যায়।