ঢাকা ১১:৫২ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মতলব দক্ষিণে ধান ক্রয়ের উদ্বোধন

  • আপডেট: ০৪:৪৮:৩৮ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০১৯
  • ২০

মতলব প্রতিনিধি:

মতলব দক্ষিণ উপজেলায় সরকারি ভাবে কৃষকদের কাছ থেকে ধান ক্রয়ের উদ্বোধন করা হয়েছে। গত ২৩ মে সকালে উপজেলা খাদ্যগুদামে কৃষকের কাছ থেকে ৪শত কেজি ধান ক্রয়ের মধ্য দিয়ে এর শুভ উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ শাহিদুল ইসলাম। এ সময় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নুশরাত শারমিন, খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা মহিউদ্দিন, পরিদর্শক জামাল উদ্দিন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
খাদ্য নিয়ন্ত্রকের কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ২৬ টাকা কেজি মূল্যে একজন কৃষকের কাছ থেকে সর্বনিন্ম ১শত ২০ কেজি থেকে সর্বোচ্চ ৩ হাজার কেজি পর্যন্ত ধান ক্রয় করা হবে। যে সকল কৃষকের কৃষিকার্ড ও নিজস্ব ব্যাংক অ্যাকাউন্ট রয়েছে শুধুমাত্র তারাই সরাসরি খাদ্যগুমে এসে ধান বিক্রয় করতে পারবে। ধান বিক্রির টাকা কৃষকের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে জমা হবে। ধান ক্রয়ের ক্ষেত্রে ধানের মান নির্ণয়ের নির্দেশিকা অনুসরন করা হবে বলে জানানো হয়। উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মহিউদ্দিন বলেন, চলতি বছর এই উপজেলায় ১শত ৩৪ মেঃ টন ধান ক্রয়ের লক্ষমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। যার মধ্যে মতলব সদরের খাদ্য গুদামে ৯৬ মেঃ টন এবং নায়েরগাঁও খাদ্য গুদামে ৩৮ মেঃ টন। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা দিলরুবা খানম বলেন, ধান ক্রয়ের কাজটি খাদ্য অধিদপ্তরের। আমরা আমাদের কৃষকদের তালিকা দিয়ে দিয়েছি এবং সরকারের কাছে ধান বিক্রির জন্য কৃষকদের অবহিত করা হয়েছে।

Tag :
সর্বাধিক পঠিত

ধর্ষণের মামলায় মাওলানা নাছির পাটোয়ারীকে আটক করলো র‌্যাব

মতলব দক্ষিণে ধান ক্রয়ের উদ্বোধন

আপডেট: ০৪:৪৮:৩৮ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০১৯

মতলব প্রতিনিধি:

মতলব দক্ষিণ উপজেলায় সরকারি ভাবে কৃষকদের কাছ থেকে ধান ক্রয়ের উদ্বোধন করা হয়েছে। গত ২৩ মে সকালে উপজেলা খাদ্যগুদামে কৃষকের কাছ থেকে ৪শত কেজি ধান ক্রয়ের মধ্য দিয়ে এর শুভ উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ শাহিদুল ইসলাম। এ সময় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নুশরাত শারমিন, খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা মহিউদ্দিন, পরিদর্শক জামাল উদ্দিন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
খাদ্য নিয়ন্ত্রকের কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ২৬ টাকা কেজি মূল্যে একজন কৃষকের কাছ থেকে সর্বনিন্ম ১শত ২০ কেজি থেকে সর্বোচ্চ ৩ হাজার কেজি পর্যন্ত ধান ক্রয় করা হবে। যে সকল কৃষকের কৃষিকার্ড ও নিজস্ব ব্যাংক অ্যাকাউন্ট রয়েছে শুধুমাত্র তারাই সরাসরি খাদ্যগুমে এসে ধান বিক্রয় করতে পারবে। ধান বিক্রির টাকা কৃষকের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে জমা হবে। ধান ক্রয়ের ক্ষেত্রে ধানের মান নির্ণয়ের নির্দেশিকা অনুসরন করা হবে বলে জানানো হয়। উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মহিউদ্দিন বলেন, চলতি বছর এই উপজেলায় ১শত ৩৪ মেঃ টন ধান ক্রয়ের লক্ষমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। যার মধ্যে মতলব সদরের খাদ্য গুদামে ৯৬ মেঃ টন এবং নায়েরগাঁও খাদ্য গুদামে ৩৮ মেঃ টন। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা দিলরুবা খানম বলেন, ধান ক্রয়ের কাজটি খাদ্য অধিদপ্তরের। আমরা আমাদের কৃষকদের তালিকা দিয়ে দিয়েছি এবং সরকারের কাছে ধান বিক্রির জন্য কৃষকদের অবহিত করা হয়েছে।