ঢাকা ০৬:২৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কানের ক্ষতি না করে যেভাবে হেডফোন ব্যবহার করবেন

  • আপডেট: ১০:৪৪:০১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২২ মে ২০১৯
  • ১১

Headphone_Use_Ear_Care_rtvonline

হেডফোন ব্যবহার যে ক্ষতিকর এটা আমাদের কারোর অজানা নয়। চিকিৎসকরা বলেন, দীর্ঘ সময় কানে এয়ারফোন রাখলে শ্রবণশক্তি হ্রাস পায়। এই সমস্যা থেকে বাঁচতে হেডফোন ব্যবহারের এই নিয়মগুলো মেনে চলুন-

একটানা ৩০ মিনিটের বেশি ইয়ারফোন বা হেডফোন ব্যবহার করবেন না। মোবাইলে কোনও সিনেমা দেখতে হলে ৩০-৪০ মিনিট পর পর মিনিট পাঁচেকের বিরতি নিন। এই সময় আপনার কান বিশ্রাম পাবে।
​যে ব্র্যান্ডের মোবাইল ব্যবহার করছেন, ঠিক সেই ব্র্যান্ডের সেই মডেলটির ইয়ারফোনই ব্যবহার করুন। প্রতিটি মোবাইল ফোন প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান তাদের নির্দিষ্ট মোবাইল ফোনের জন্য নির্দিষ্ট ইয়ারফোন তৈরি করে। ফোন থেকে বের হওয়া রশ্মির তরঙ্গ, শব্দ তরঙ্গের কম্পন— ইত্যাদির ওপর ভিত্তি করেই ইয়ারফোনের তরঙ্গ, ক্ষমতা ইত্যাদি ঠিক করা হয়। এজন্য ইয়ারফোন খারাপ হলে নির্দিষ্ট মডেলের সঠিক ইয়ারফোন কিনে তবেই ব্যবহার করুন।
হেডফোন বা ইয়ারফোনে কখনোই সর্বোচ্চ ভলিউমে কিছু শুনবেন না। এতে কানের পর্দা ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ইয়ারফোনের মাধ্যমে এই আওয়াজ সরাসরি কানে প্রবেশ করে। তাই এ বিষয়ে বিশেষভাবে সচেতন থাকা জরুরি। প্রতিটি ফোনেই হেডফোনের ভলিউমে শ্রবণযোগ্য মাত্রা নির্দেশ করা থাকে। পারলে ওই নির্দেশ মেনে চলুন।

Tag :
সর্বাধিক পঠিত

মেজর অব. রফিকুল ইসলাম বীরউত্তম এমপি’র ঈদ শুভেচ্ছা

কানের ক্ষতি না করে যেভাবে হেডফোন ব্যবহার করবেন

আপডেট: ১০:৪৪:০১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২২ মে ২০১৯

হেডফোন ব্যবহার যে ক্ষতিকর এটা আমাদের কারোর অজানা নয়। চিকিৎসকরা বলেন, দীর্ঘ সময় কানে এয়ারফোন রাখলে শ্রবণশক্তি হ্রাস পায়। এই সমস্যা থেকে বাঁচতে হেডফোন ব্যবহারের এই নিয়মগুলো মেনে চলুন-

একটানা ৩০ মিনিটের বেশি ইয়ারফোন বা হেডফোন ব্যবহার করবেন না। মোবাইলে কোনও সিনেমা দেখতে হলে ৩০-৪০ মিনিট পর পর মিনিট পাঁচেকের বিরতি নিন। এই সময় আপনার কান বিশ্রাম পাবে।
​যে ব্র্যান্ডের মোবাইল ব্যবহার করছেন, ঠিক সেই ব্র্যান্ডের সেই মডেলটির ইয়ারফোনই ব্যবহার করুন। প্রতিটি মোবাইল ফোন প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান তাদের নির্দিষ্ট মোবাইল ফোনের জন্য নির্দিষ্ট ইয়ারফোন তৈরি করে। ফোন থেকে বের হওয়া রশ্মির তরঙ্গ, শব্দ তরঙ্গের কম্পন— ইত্যাদির ওপর ভিত্তি করেই ইয়ারফোনের তরঙ্গ, ক্ষমতা ইত্যাদি ঠিক করা হয়। এজন্য ইয়ারফোন খারাপ হলে নির্দিষ্ট মডেলের সঠিক ইয়ারফোন কিনে তবেই ব্যবহার করুন।
হেডফোন বা ইয়ারফোনে কখনোই সর্বোচ্চ ভলিউমে কিছু শুনবেন না। এতে কানের পর্দা ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ইয়ারফোনের মাধ্যমে এই আওয়াজ সরাসরি কানে প্রবেশ করে। তাই এ বিষয়ে বিশেষভাবে সচেতন থাকা জরুরি। প্রতিটি ফোনেই হেডফোনের ভলিউমে শ্রবণযোগ্য মাত্রা নির্দেশ করা থাকে। পারলে ওই নির্দেশ মেনে চলুন।