ব্যাটিং ইনিংসে সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে ৪৩০ রানের লিড এনে দিয়েছিলেন মেহেদী হাসান মিরাজ। এবার ভেলকি দেখালেন বল হাতে। ২৬ ওভারে ৫৮ রান দিয়ে ৪ উইকেট শিকার করেন এ অফ-ব্রেক বোলার।

তার দুর্দান্ত বোলিংয়ে ২৫৯ রানে গুটিয়ে যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সেই অর্থে ১৭১ রানের লিড নিয়ে নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছে বাংলাদেশ।

আর দ্বিতীয় ইনিংসে বল করতে নেমেই বাংলাদেশ শিবিরে বড় ধাক্কা দিলেন উইন্ডিজ দানব রাহকিম কর্নওয়াল।

টপাটপ তুলে নিয়েছেন বাংলাদেশের ২ উইকেট। দ্বিতীয় ইনিংসেও ব্যর্থ হয়েছেন ওপেনার তামিম ইকবাল। প্রথম ইনিংসে ব্যক্তিগত ৯ রানের মাথায় কেমার রোচের পেসে বোল্ড হন তামিম। আর এবার রানের খাতাই খুলতে পারেননি।

মাত্র ৪ বল টিকেছেন ক্রিজে। রাহকিমের ঘূর্ণিতে এলবিডব্লিউ হয়ে শূন্যরানে ফিরেন তিনি।
তামিমের পর ব্যর্থ হয়েছেন টপঅর্ডার ব্যাটসম্যান নাজমুল হোসেন শান্ত। একই ওভারের শেষ বলে অর্থাৎ এক ডট দিয়েই শান্তকে হজম করলেন কর্নওয়াল। দলীয় রান ১ হতেই ২ উইকেট হারিয়ে ফেলে বাংলাদেশ। প্রথম ইনিংসে শান্ত ৫৮ বলে ২৫ রানের কেমিও ইনিংস খেলেছিলেন। এবার ফিরলেন শূন্যহাতে। দলের এমন বিপর্যস্ত পরিস্থিতিতে ব্যাট হাতে নেমেছেন অধিনায়ক মুমিনুল হক। ১৪ বলে ৯ রান সংগ্রহ করেছেন।

অপর প্রান্তে ওপেনার সাদমান ইসলাম দেখেশুনে খেলছেন। ২৯ বল মোকাবেলা করে মাত্র ১ রান করেছেন তিনি।

এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত বাংলাদেশের সংগ্রহ ২ উইকেট খুঁইয়ে ২১ রান। অর্থাৎ ১৯২ রানের লিড নিয়ে এগিয়ে আছে স্বাগতিক বাংলাদেশ।

Sharing is caring!