করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেই মোকাবেলায় চাঁদপুর জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে সাধারণ মানুষের মুখে শতভাগ মাক্স পরা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার দুপুরে শহরের ইলিশ চত্বর এলাকায় মাক্স পড়ার অভিযানে সন্দেহভাজন দুই ছিনতাইকারীকে আটক আটক করেছে জেলা প্রশাসনের ভ্রাম্যমাণ আদালত।

আটককৃতরা হলেন, গাজীপুর শ্রীপুর এলাকার শাহ মোহাম্মদ নেওয়াজ খানের ছেলে শোয়েব খান (২১) ও একই এলাকার নবী নেওয়াজ খানের ছেলে শাকিল খান (২০)।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আজিজুন নাহার। তিনি জানান, মাক্স পড়ার নিয়মিত অভিযান হিসেবে আমরা ইলিশ চত্বর এলাকায় পথচারী ও বিভিন্ন যানবাহনে অভিযান চালাই। এ সময় আগত দুই যুবকের মুখে না থাকায় আনসার ব্যাটালিয়নের সদস্যরা তাকে বিভিন্ন প্রশ্ন করে। এতে দুই যুবকের বক্তব্য সন্দেহজনক হলে তাদের সাথে থাকা একটি ব্যাগ তল্লাশি করা হয়। এসময় ওই ব্যাগ তল্লাশি চালিয়ে ছিনতাই করার সরঞ্জাম ও মাদক উদ্ধার করা হয়।

এ বিষয়ে চাঁদপুর জেলার মাদক অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মুহাম্মদ দিদারুল আলম জানান, অভিযানে দুই যুবক আটক হওয়ার কিছুক্ষণ পরেই আমরা ঘটনাস্থলে আসি। তাদের কাছে উদ্ধারকৃত সবচেয়ে বড় একটি বস্তুর ছিল ইলেকট্রিক শর্ট স্টেনগান। এই ইলেকট্রিক স্টিম গানটি বোল্টের। এর মাধ্যমে তারা চিন্তায় কাজে লিপ্ত হতে পারে। এটি যার শরীরে দেওয়া হবে সে অজ্ঞান কিংবা দুর্বল হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়বে। এছাড়া তাদের কাছর ব্যাগ তল্লাশী করে ৫ টি মোবাইল, ৫ টি লাইটার, ৪ টি মেমোরী কার্ড, ১০ গ্রাম গাঁজা, একটি গাঁজা সেবনের কলকি, ১০ গ্রাম সাদাপাতা,হেডফোন ও বিভিন্ন যন্ত্রাংশের তার উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় চাঁদপুর মডেল থানায় খবর দেওয়া হলে আটককৃত দুই যুবককে থানায় নিয়ে যায়। থানার এস আই ইসমাইল হোসেন জানান, তাদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা দায়ের করা হবে। কারা বড় ধরনের কোন ছিনতাই চক্রের সাথে জড়িত আছে কিনা জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।

Sharing is caring!